1. admin@doinikdakbangla.com : Admin :
করোনা পজেটিভ ব্যাক্তি হোম কোয়ারেন্টাইন শেষে আবারও পজেটিভ হয় কেন? » দৈনিক ডাক বাংলা
রবিবার, ২০ জুন ২০২১, ০৭:২৭ অপরাহ্ন

করোনা পজেটিভ ব্যাক্তি হোম কোয়ারেন্টাইন শেষে আবারও পজেটিভ হয় কেন?

জান্নাত ইসলাম, বার্তা সম্পাদক দৈনিক ডাক বাংলা
  • প্রকাশের সময়: শনিবার, ১৩ মার্চ, ২০২১
  • ১১৭ বার পঠিত

আমরা সবাই জানি,বর্তমানে করোনা ভাইরাসের প্রভাব ও বিস্তার সম্পর্কে। কিন্তু তার পরও আজ আমি আপনাদের করোনা ভাইরাস নিয়ে খুবই গুরুত্বপুর্ন কিছু কথা বলবো। যা অনেকেই জানেন না।

আমরা বেশির ভাগ মানুষ করোনা পজিটিভ আসার পর ডাক্তার আমাদের ১০ অথবা ১৪ দিনের জন্য হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে বলে। পাশাপাশি আমাদের পরিবারের সবাইকেও ৭-১০দিনের জন্য হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হয় বা ডাক্তার বলে। যখনই হোম কোয়ারেন্টাইন শেষ হয় ডাক্তার আমাদেরকে বাইরে বের হওয়ার অনুমতি দেয়। কিন্তু পরিবারের সবাইকে অবশ্যই করোনা টেস্ট করতে হবে। কিন্ত যাদের পজিটিভ ছিল তাদেরকে টেস্ট করতে হয় না।

কিন্তু কেন?

কারন ভাইরাস পজিটিভ শরীরে ২ সপ্তাহ বেঁচে থাকে তার পরে মরে যায়। কিন্তু অনেকেই আছে হোম কোয়ারেন্টাইন শেষ হওয়ার পরে ডাক্তার বাইরে বের হওয়ার অনুমতি দেওয়ার পরেও করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ না আসা পর্যন্ত নিজেদের শান্ত করতে পারেন না। তাই আবারো করোনা টেস্ট করেন আর ঠিক তখনি রিপোর্ট আবারও পজেটিভ চলে আসে। কারন ভাইরাস ২ সপ্তাহ শরীরে থাকার পরে মরে যায় কিন্তু ভাইরাসের প্রভাব বা আলামত শরীরে ঠিকই থাকে এবং এটি সম্পুর্ণভাবে শেষ হতে প্রায় ২৮ দিন লাগে।

আবার এটি অনেকের জন্য ব্যতিক্রম ও হয় ২৮ দিনের আগেই নেগেটিভ চলে আসে।

১০-১৪ দিন হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা ব্যাক্তির কাছে থেকে করোনা ছড়ানোর সম্ভবনা আর থাকে না কারন একটি ভাইরাস ২ সপ্তাহ শরীরে বেচেঁ থাকে এর পরে আর এটি জীবিত থাকে না বলে বিস্তার করতে পারে না।

সুতরাং করোনা বিস্তারের সময়সূচি ১০-১৪ দিন। আর এই দিনগুলো পরে করোনা পজিটিভ ব্যাক্তি বাইরে বের হলেও এর কোন প্রভাব থাকবে না আর তাই ডাক্তার আমাদের টেস্ট ছাড়াই বাইরে যাওয়ার অনুমতি দেয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও খবর

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক ডাক বাংলা

Theme Customized BY LatestNews